মানুষ চেনা সবচেয়ে কঠিন কাজ | bangla motivational speech
লেখক সোহেল মাহমুদ

মানুষ চেনা কঠিন  মানুষ চেনা। বাস্তব কিছু কথা

মানুষ চেনা  বর্তমান সময়ের সবচেয়ে কঠিন একটা কাজ। যা কেউ সহজেই পারেনা। আর এটা এমন একটা কাজ যেটা নিয়ে সাধনা করাও যায় না এবং সাধনা করতে গেলেও এই কাজটা সম্পূর্ণ ভাবে সফল হতে পারেনা। 


আপনি কিভাবে মানুষ চিনবেন মানুষের পরোতে পরোতে লুকিয়ে থাকে মুখোশ। মুখোশের ওপর দিয়ে আপনি মানুষটাকে চেনেন। কিন্তু যখন মুখোশ সরিয়ে ফেলা হয় তখন আপনি সেই মানুষটাকে চিনতে পারবেন না। মানুষের দুটো রুপ সব সময় থাকে। একটা তার বাহিরের রূপ একটা তার ভিতরের রুপ। সবসময় একটা মানুষের বাহিরের রূপ টা দেখেন তার ভেতরটা কখনোই দেখেন না। আপনি বলুন আমি বলুন কেউই মানুষ চিনতে পারিনা। আরও পড়ুন

সম্পন্ন করার আগে সবকিছুই অসম্ভব মনে হয়। Bangla motivational speech

প্রতিটি মানুষের আলাদা আলাদা সক্রিয়তা থাকে। নিজস্ব বলে কিছু থাকে। আপনার সাথে তারা অনেক কিছুই মিলবে না আর কিছু কিছু মিলিয়ে যেতে পারে। তার মানে এই নয় যে আপনি তার মত। আপনার কিছু ভাললাগা আছে যেগুলো আপনি পছন্দ করেন। কিন্তু এমন কিছু আছে যেটা সে পছন্দ করে না। হয়তো আপনার মিলে যাওয়া বা আপনার ভালোলাগার সাথে তারও ভাল লাগে মিলে যেতে পারে কিন্তু আপনার ভালো না লাগা বিষয়গুলো তারও ভালো নাও লাগতে পারে। তাই আপনি আর সে কিন্তু এক না।  আপনার মাঝে এবং তার মাঝে অনেক পার্থক্য বিদ্যমান। যা আমরা সহজেই বুঝতে পারি না।


মানুষকে চিনতে হলে খুব কাছ থেকে চিনতে হয়। দূরে থেকে কখনো মানুষ চেনা যায় না। দূর থেকে আপনি কোন কিছু সুস্পষ্টভাবে দেখতে পারবেন না। দূর থেকে সবকিছু ঝাপসা মনে হতে পারে। অথবা রঙিন মনে হতে পারে। আরও পড়ুন

    গল্পঃ ধর্ষিতা বউ 

 যেমন উদাহরণস্বরূপ বলা যেতে পারে আমরা যখন কোন কিছু কেনাকাটা করতে যায় তখন আমরা রঙ্গিন বাতিতে কাপড়-চোপড় জাঁকজমকভাবে দেখি। দেখি তখন আমরা এই কাপড়টা চয়েজ করে কিনে নিয়ে আসি দামটা বেশি হলেওও। আমরা ওইটা ইউজ করি এবং কিনে আনি কিন্তু যখন আমরা এটাকে বাসায় নিয়ে আসি তখন এইটা আর ওই রঙিন জাঁকজমক মনে হয় না। তখন মনে হয় এটা যেন কয়েক বছরের পুরানো বস্ত্র। যেটা আমরা কোথাও থেকে কুড়িয়ে নিয়ে এসেছি। এরকম অনেক উদাহরণ আছে।


 কেউ একজন তার কোনো আত্মীয় বা কারো জন্য কোন কিছু গিফট কিনল অনেক চওড়া দামে অনেক বেশি টাকা দামের মনে হচ্ছে যে এটা অনেক বেশী সুন্দর লাগছে। কিন্তু যখন বাসায় আসলো তখন দেখলো না এটা রং টা চেঞ্জ হয়ে গিয়েছে। তখন ওই আত্মীয়-স্বজনকে দিলে এটা পছন্দ হয় না। কেন হয় না? কারণ সে চিনতে ভুল করেছে। তারা দেখেছে এক রুপ কিন্তু বাসায় আনার পর একটা রূপ বেরিয়ে গেছে। অর্থাৎ এটার ২ টা রুপ ছিল। দেখুন একটা কাপড় কে যখন আমরা চিনতে পারিনা।।সেখানে মানুষ চেনা এত সহজ মানুষ যেন অনেক কঠিন একটা কাজ। আরও পড়ুন

মেয়েদের নিয়ে কিছু বাস্তব সত্য কথা। Bangla love story

বাহিরের বিষয়গুলোকে আমরা ঝাপসা দেখি। অন্যরকম একটা আমাদের কাছে লাগে। কিন্তু আমরা যখন এটার কাছে চলে আসি। তখন এইটা অনেক কিছু আমাদের কাছে স্পষ্ট হয়ে যায়। যখন আমরা এটা থেকে দূরে থাকি তখন এটা দোষ গুলো আমরা দেখতে পায় না। কিন্তু যখন আমরা এটার কাছে আসে কোন মানুষের কাছে আসি তখন মানুষের দোষ সেরকম বুঝতে পারি। কিন্তু দূরে থাকলে এই মানুষটার আমরা দোষ বুঝতে পারিনা। মনে হয় যে সে সবচেয়ে সাধু ব্যক্তি। কিন্তু যখন আমরা তার সাথে চলি তার সাথে আমাদের উঠবস হয়ে তার সাথে আমরা কথাবার্তা করি তার সাথে আমরা সম্পর্ক করে তখন আমরা বুঝতে পারি যে আমাদের মাঝে তার মাঝে অনেক পার্থক্য আছে। হতে পারে এটা এবং আমি এতদিন এই মানুষটাকে যেরকমটা মনে করেছি আসলেই মানুষটা সেরকম না। এর জন্য আপনাকে মানুষের সাথে মিশতে হবে। আপনি যাকে চিনতে চান তার সাথে মিশতে হবে।


আবার অনেক সময় দেখা গেলো আপনি একজন মানুষকে চেনার জন্য তার সাথে মিশেছেন। তবু আপনি তাকে চিনতে পারবেন না। এমন অনেক দম্পতি আছে যারা ৫০ ৬০ বছর সংসার করেও একে অপরকে চিনতে পারছেনা। একে অপরকে চিনতে পারে এর মানে এই না যে এর নামটাই ভুলে গেল। এটা না। তার আচার-আচরণ চালচলন তার রাগ পছন্দ-অপছন্দগুলো এখনো ঠিকমতো বুঝে উঠতে পারেনি। তাহলে দেখুন একটা মানুষ যেখানে ৫০ ৬০ বছর একসাথে কাটিয়েছে একসাথে ঘুমিয়েছে এক বিছানায় কাটিয়েছে এক রুমে থেকেছি এবং একসাথে খেয়েছে তবু তারা একে অপরের বিষয়গুলো বুঝতে পারছে না। একে অপরকে চিনতে পারছে না। তাহলে বুঝুন মানুষ চেনা টা কতটা কঠিন। মানুষ চেনা কঠিন না বলবেন এখনো! সেটাই মানুষ চেনা অনেক কঠিন একটা কাজ যেটা আমরা সহজেই পারেনা।


অনেক সময় দেখা গেলে কি একটা মানুষকে আমরা তার সম্পর্কে একটা মনোভাব তৈরি করে ফেলি। তার সম্পর্কে একটা মন্তব্য করে ফেলি। আরও পড়ুন

Bangla Romantic Sad Love Story | গল্প ডিভোর্সি বউ 

যেমন উদাহরণস্বরূপ বলা যেতে পারে কেউ যদি আপনার কাছে কোন একটা বিষয়ে সাহায্য চাইলে আপনি তাকে খুব সহজেই সাহায্য করে দিলেন। কিন্তু অন্য একজন লোকের কাছে যখন সেই ব্যক্তিটি সাহায্য চাইতে গেল তখন সাহায্য দিল না। তখন আপনি তার সম্পর্কে একটা মন্তব্য করে দিলেন।  লোকটা ঐ লোকটা ভাল না এরকম না হয়তো সে যে রকমই হোক না কেন সে কেন সাহায্য টা দিলো না তার পিছনে তো কোন না কোন কারন আছে।


আপনি কি সেটা জানেন না। এজন্য আপনি মন্তব্য করেছেন। আপনি যদি সে কারণটা জানতেন তাহলে মনে করতেন না।


মানুষ চেনা টা আসলেই অনেক কঠিন। তার মানুষের সম্পর্কে মন্তব্য করাটা অনেক কঠিন। আরেকটা কাজ সবচেয়ে সহজে মানুষ সম্পর্কে মন্তব্য করে ফেলি। যতটা না তার সম্পর্কে আমরা জানি যতটা সম্পর্কে আমরা তাকে চিনি। 


মানুষ চেনা সম্পর্কে আরেকটা উদাহরণ দেয়া যেতে পারে।


 মনে করুন দুটো মেয়ে স্কুলের দিকে যাচ্ছে স্কুলে যাচ্ছেন তো সেই সময় একটা গাড়ি চালাচ্ছিল জোরে যাচ্ছিল। বা মনে করেন একটা গর্তে পড়ে ময়লা কাদাযুক্ত পানি মেয়েটার গায়ে গিয়ে পড়ল। এবং তাদের ড্রেস নষ্ট হয়ে গেল। তখন মেয়ে দুটি কি করবে ওই ড্রাইভারকে বা যে গাড়ি চালাচ্ছিল তাকে গালাগাল করবেন। হয়তো আশেপাশের কেউ একজন এসে ওই ড্রাইভার দুটো চড় থাপ্পড় দিয়ে দিবে। আপনি কি ভাবছেন খুব সহজে ভাবছেন। এটা তো খুব অভদ্র। অভদ্র লোক এদের কোনও মানেই হয় না। একটা বর্ষাকালে গাড়ি গর্তে পড়তে পারে এবং গর্তে পড়ার পরে সেখান কাদাযুক্ত পানিতে মানুষের গায়ে পড়তে পারে।  হয়তো সে জানতো না এখানে ময়লা আছে। তাহলে সে এমন করতো না। এসব মন্তব্য করে আপনি আপনার মত করে চলে গেলেন। আরও পড়ুন

এক তরফা ভালবাসা। bangla love story

হঠাৎ একদিন আপনি একটা রাস্তা দিয়ে যাচ্ছেন। তো একটা গাড়ি তখন যাচ্ছিল এবং যাওয়ার সময় কিছুটা কাদাযুক্ত পানি আপনার গায়ে পড়লে এবং আপনার কাপড় নষ্ট হলো। তখন আপনি কি করলেন চেঁচামেচি করলেন। এবং ড্রাইভারটি অনেক গালাগাল করলেন। এবং আশেপাশের লোকজনকে দেখালেন। দেখার মতো কাজটা করলো না ঠিকঠাকমতো গাড়ি চালাবেন দেখে শুনে চালাবে না। এদের কোনো সিস্টেম নেই। এরা কোন ঠিকমত চালাতে পারেনা। মানুষকে মানুষ মনে করে না।


 এবার দেখুন আপনার কাছে যখন পানিটা পড়বো তখন আপনি আপনার মত করে গালিগালাজ করলেন আপনি গালিগালাজ করলেন তখন এটা কিন্তু আপনার দোষ হয়নি। কিন্তু ওই মেয়ে দু'টো যখন গালিগালাজ করল তাদের পোশাক নষ্ট হয়ে যাওয়ার কারণে তখন সেটা হয়ে গেলে কি খারাপ। তাহলে বুঝুন আপনার এবং তার মাঝে পার্থক্যটা। আপনি আপনাকে তো চিনতে পারেননি। পরিস্থিতি অনুযায়ী যখন ওরা গালাগালি করছিল আপনি দর্শক ছিলেন। যখন আপনার গায়ে পড়ছিল তখন আপনি সেখানে নায়ক-ভিলেন। তাহলে পরিস্থিতি অনুযায়ী আপনি কি করলেন দুজন দুজনের মতো ব্যবহার করলেন। কিন্তু আমরা মন্তব্য করে ফেলি। তাই না। তাহলে এটা কি? bdlovestory.com

মানুষ বোঝা অনেক কঠিন।


 মানুষ চিনলাম না। এখনো মানুষ পরিস্থিতি অনুযায়ী অনেক কিছু বুঝিয়ে দিল। তাহলে বলুনতো মানুষ চেনা কি কঠিন না সহজ?


মানুষ চেনা সম্পর্কে আরও কিছু কথা বলি। আমরা মানুষগুলো নিজে বিচারক হতে পারি। কিন্তু কখনও আমরা আসামি হতে পারি না।


 আমরা কখনো আমাদের নিজের দোষ গুলো দেখি না। আমরা অন্য দোষ গুলো দেখি। অন্যকে সবসময় আমরা চেনার চেষ্টা করি। এবং অন্যের সম্পর্কে মতামত প্রকাশ করি। তাই হয়তো আমরা মানুষ চিনতে পারিনা আরও পড়ুন

আপন জনদের হারানোর কষ্ট। কিছু কষ্টের কথা। ভালবাসার কিছু কথা - bangla love story

মানুষ চেনা আসলেই খুব কঠিন। যা কেউ হাজারবছরধরে পারেনা। আর কেউ এক বছরও পারেনা। কেউ হয়তো কিছুটা সময় তার সাথে থেকে তার সম্পর্কে কিছু কিছু জানে। আবার কেউ দেখা গেল তার সাথে দশ বছর থেকে ও তার সম্পর্কে কিছুই জানো না। এটা মানুষ চেনা একটা সিস্টেম এর ভিতরে পড়তে পারে।


মানুষ চেনা অনেক কঠিন। সত্যি মানুষ চেনা খুবই কঠিন। সহজে মানুষ চেনা যায় না।

মানুষ চিনতে পারলাম না।


আপনিও আপনার মতামত জানাতে পারেন। মানুষ চেনা আপনার কাছে কেমন মনে হয়?


এরকম অনেক ভালো ভালো সুন্দর সুন্দর পোস্ট আছে bdlovestory.com এ।  আপনার সময় মত আপনি সবগুলো পোস্ট পড়তে পারেন। অনেক অনেক ভালো লাগবে। bdlovestory.com এ আপনি ভালোবাসার গল্প কথা, মোটিভেশনাল স্পিচ ও ভালোবাসার গল্প এগুলো পেয়ে যাবেন।


Post a Comment

Previous Post Next Post